রহস্যজনক ভাইরাসে অসুস্থ ১৭০০

105

চীনে রহস্যজনক ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন শত শত মানুষ। সরকারিভাবে আক্রান্তের সংখ্যা যা বলা হচ্ছে প্রকৃতপক্ষে এই সংখ্যা আরও বেশি বলে ধারণা করছেন বিজ্ঞানীরা।

ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর এখন পর্যন্ত ৪১ জনের নতুন এই ভাইরাসের আক্রান্তের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে। তবে যুক্তরাজ্যের বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই ভাইরাসে আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা প্রায় ১৭শ।

এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত দু’জনের মৃত্যু হয়েছে। গত ডিসেম্বরে উহান শহরে এই ভাইরাসের আবির্ভাব ঘটে। রোগের প্রাদুর্ভাব নিয়ে গবেষণা করা অধ্যাপক নেইল ফার্গুসন বলেন, এক সপ্তাহ আগের চেয়ে আমি এখন এই বিষয়ে অনেক বেশি উগ্বিগ্ন।

চীনের উহান থেকে আসা যাত্রীদের সিঙ্গাপুর এবং হংকংয়ের বিমানবন্দরে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করছে কর্তৃপক্ষ। যুক্তরাষ্ট্রও ঘোষণা করেছে যে, তারা শুক্রবার থেকে সান ফ্রান্সিসকো, লস অ্যাঞ্জেলস এবং নিউইয়র্কের প্রধান বিমানবন্দরে একই ধরনের কার্যক্রম শুরু করবে। কারণ আক্রান্ত ব্যক্তিদের দ্বারা এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

চীনের রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্র জানিয়েছে, এই ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের শরীরে প্রথমেই যে লক্ষণগুলো পাওয়া গেছে সেগুলো হলো, শ্বাসকষ্ট, জ্বর, সর্দি, কাশি। এ থেকে প্রথমেই মনে হতে পারে যে রোগী নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন।

অনেকটা নিউমোনিয়ার মতোই এই ভাইরাসটি এক ধরনের করোনা ভাইরাস। উহান হেলথ কমিশন জানিয়েছে, রহস্যজনক এই ভাইরাসে অনেকে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে ১২ জন হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেও পাঁচজন এখনও চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাদের অবস্থা বেশ গুরুতর। স্থানীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, সামুদ্রিক খাবার বিক্রির একটি বাজার থেকে এই রোগ ছড়িয়ে পড়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে, একজনের শরীর থেকে অপরজনের শরীরে এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার বিষয়টি এখনও নিশ্চিত হওয়া না গেলেও এ ধরনের সংক্রমণের সম্ভাবনা রয়েছে। বিশেষ করে পরিবারের লোকজনের মধ্যে সংক্রমণের আশঙ্কা বেশি।

কমেন্ট করুণ

দয়া করে আপনার কমেন্ট করুণ
দয়া করে আপনার নাম দিন